বিস্তারিত

চাদের প্রেসিডেন্ট ইদ্রিস দেবি নিহত

ছবি : সংগ্রহকৃত

আফ্রিকার দেশ চাদের প্রেসিডেন্ট ইদ্রিস দেবি বিদ্রোহীদের সঙ্গে সংঘর্ষে মারা গেছেন। দেশটির রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে এ ঘোষণা দিয়েছে। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৮ বছর। তিনি গত ৩০ বছর ধরে চাদের ক্ষমতায় ছিলেন।

সেনাবাহিনীর তরফ থেকে জানানো হয়েছে, চাদকে রক্ষা করতে যুদ্ধের ময়দানে গিয়ে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন ইদ্রিস। দেশটির সীমান্ত এলাকায় বিদ্রোহীদের সঙ্গে সংঘর্ষ চলছে। গত ১১ এপ্রিল চাদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এই নির্বাচনে প্রায় ৮০ ভাগ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন তিনি।

সর্বশেষ জানা গেছে, সেনাবাহিনী এখন দেশের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। আগামি ১৮ মাস সামরিক পরিষদ চাদ পরিচালনা করবে। ১৯৯০ সালে ইদ্রিস দেবি নিজেও সামরিক অভ্যুত্থান করে ক্ষমতায় এসেছিলেন। গত সপ্তাহে তিনি দেশটির উত্তরাঞ্চলে লিবিয়া সীমান্তে যান। সেখানে বিদ্রোহীদের দমনে লড়াই করছিল সেনাবাহিনী। এরমধ্যে সোমবার তিনি সামরিক বাহিনীর সঙ্গে মিলে বিদ্রোহী মোকাবেলায় নামেন বলে জানিয়েছে সেনাবাহিনী। এতেই তিনি গুরুতর আহত হন। তাকে রাজধানীতে আনার চেষ্টা চলে কিন্তু পথেই তার মৃত্যু হয়। তার মৃত্যুর পর দেশের নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে মিলিটারি কাউন্সিল। ইদ্রিসের ছেলে কাকা এখন এর দায়িত্বে আছেন।

এদিকে, বিদ্রোহীদের প্রায় ৩০০ জনকে হত্যা করা হয়েছে বলে দাবি করেছে চাদের সেনাবাহিনী। আটক করা হয়েছে ১৫০ জনকে। সেনা নিহত হয়েছে ৫ জন, আহত হয়েছে ৩৬ জন।

সংবাদের ধরন : আন্তর্জাতিক নিউজ : নিউজ ডেস্ক