বিস্তারিত

অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন জিম ইয়ং কিম

ছবি : সংগ্রহকৃত

রোহিঙ্গাদের সহায়তায় ৪৮ কোটি ডলার অনুদানের ঘোষণা দিয়েছে বিশ্বব্যাংক। আজ রোববার সকালে সচিবালয়ে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের সঙ্গে সাক্ষাৎ শেষে বিশ্বব্যাংকের প্রেসিডেন্ট জিম ইয়ং কিম এ কথা জানান।

রোহিঙ্গা পরিস্থিতি নিয়ে বিশ্বব্যাংক সব দেশকে আশ্রিতদের পাশে দাঁড়ানোর আহবান জানান জিম ইয়ং কিম। এদিকে রোহিঙ্গাদের ফেরত নেওয়ার বিষয়ে মিয়ানমার যেসব বিষয় আলোচনায় নিয়ে আসছে তা সম্পূর্ণ ‘রাবিশ’ বলে মন্তব্য করেছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

রোহিঙ্গাদের দুঃখ দুর্দশা দেখতে গতকাল শনিবার রাতে বাংলাদেশে আসেন বিশ্বব্যাংকের প্রেসিডেন্ট জিম ইয়ং কিম। তিনদিনের সফরের প্রথম কর্মসূচি ছিল অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের সঙ্গে বৈঠক। সচিবালয়ে প্রায় এক ঘণ্টার বৈঠকে প্রধান্য পায় রোহিঙ্গা ইস্যুটি। মানবিক কারণে রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দেওয়ায় বাংলাদেশের প্রশংসা করেন জিম ইয়ং কিম। এ সময় তিনি বলেন, ক্যাম্পে থাকা রোহিঙ্গাদের বিশুদ্ধ পানি, স্বাস্থ্য সুরক্ষা ও জীবনমান নিশ্চিতে ৪৮ কোটি ডলার সহায়তা দেবে বিশ্বব্যাংক।

জিম ইয়ং কিম বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ যে পথে এগুচ্ছে তাতে আমরা খুবই আশাবাদী। বিপুল পরিমাণ রোহিঙ্গাদের মানবিক ও শান্তিপূর্ণ উপায়ে আশ্রয় দেওয়ার জন্য বাংলাদেশের সাধারণ মানুষ ও সরকারকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি। রোহিঙ্গাদের সহায়তায় বিশ্বব্যাংক ৪৮ কোটি ডলার অর্থ সাহায্য ঘোষণা দিয়েছে।

আগামীকাল সোমবার রোহিঙ্গাদের পরিস্থিতি দেখতে জাতিসংঘ মহাসচিবের সঙ্গে কক্সবাজার যাবেন বিশ্বব্যাংক প্রেসিডেন্ট।

সংবাদের ধরন : র্শীষ সংবাদ নিউজ : নিউজ ডেস্ক