বিস্তারিত

১০ জনে ১ জন নিরাপদ পানি পায় না: জাতিসংঘ

bdnews ছবি : সংগ্রহকৃত

বিশ্বের প্রায় ৬৫ কোটি মানুষ নিরাপদ পানি থেকে বঞ্চিত। অর্থাৎ বিশ্বের মোট জনসংখ্যার প্রতি ১০ জনের ১ জন সুপেয় পানির অভাবে আছে। এ অবস্থা তাদের সংক্রামক ব্যাধি ও অকালমৃত্যুর ঝুঁকিতে ঠেলে দিচ্ছে।
জাতিসংঘের এক পরিসংখ্যান অনুযায়ী, দূষিত পানি ও দুর্বল স্যানিটেশন-ব্যবস্থা শিশুদের গুরুতর ডায়রিয়াজনিত রোগে আক্রান্ত হওয়ার কারণ। বিশ্বব্যাপী প্রতিদিন এমন রোগে পাঁচ বছরের কম বয়সী ৯০০ শিশু মারা যাচ্ছে। অর্থাৎ প্রতি দুই মিনিটে মারা যাচ্ছে একটি শিশু।
বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, সুপেয় পানির অভাব ও অপরিচ্ছন্ন পরিবেশের কারণে রোগ সংক্রমণের শিকার নবজাতকদের একজন প্রতি মিনিটে বিশ্বের কোথাও না কোথাও মারা যাচ্ছে।
জাতিসংঘ বলছে, মানব স্বাস্থ্যের জন্য নিরাপদ পানি পানের সুবিধা ও পর্যাপ্ত স্যানিটেশন সেবা গুরুত্বপূর্ণ। এ ছাড়া সময় ও খরচ বাঁচানো থেকে শুরু করে যাতায়াত, ভালো থাকা, মর্যাদাপূর্ণ অবস্থা, গোপনীয়তা ও নিরাপত্তার মতো বিষয়াদির জন্যও গুরুত্বপূর্ণ এগুলো।
বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমান, পানি সরবরাহব্যবস্থা ও স্যানিটেশন সেবার উন্নয়নে প্রতি এক ডলার বিনিয়োগে কাজের ধরন অনুসারে ৪ থেকে ১২ ডলার মূল্যমানের সুবিধা অর্জিত হতে পারে।
এ বছর জাতিসংঘের বিশ্ব পানি দিবস পালিত হবে ২২ মার্চ। এ দিনের প্রতিপাদ্যে মনোযোগ দেওয়া হচ্ছে পানি ও কর্মসংস্থানের ওপর। পানিসম্পদ কীভাবে পারিশ্রমিক ও শোভন কাজের সুযোগ সৃষ্টি করতে এবং সতেজ অর্থনীতি ও টেকসই উন্নয়নে অবদান রাখতে পারে, সেই দিকে গুরুত্ব দিয়ে দিবসটির কর্মসূচি পালন করা হবে।

সংবাদের ধরন : আন্তর্জাতিক নিউজ : বিডি নিউজ