বিস্তারিত

মুশতাকের মৃত্যুর প্রতিবাদ মিছিলে পুলিশের লাঠিপেটা

ছবি : সংগ্রহকৃত

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে গ্রেপ্তার হওয়া লেখক মুশতাক আহমদের কারাবন্দি অবস্থায় মৃত্যুর প্রতিবাদে মশাল মিছিল করেছে বামপন্থি ছাত্র সংগঠনগুলোর মোর্চা প্রগতিশীল ছাত্র জোট। এ সময় মিছিলকারীদের লাঠিপেটা করে পুলিশ। একপর্যায়ে আন্দোলনকারীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ বাঁধে। এতে আন্দোলনকারীদের অন্তত ১৫ জন আহত এবং তিনজনকে আটক করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় পুলিশের ১২ থেকে ১৪ জন আহত হয় বলেও জানিয়েছেন।

আজ শুক্রবার রাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় এই কর্মসূচি করে বাম সংগঠনগুলোর এই জোট।

বিক্ষোভকারীদের অভিযোগ, মিছিল নিয়ে শাহবাগে গেলে পুলিশ তাদের বাধা দেয়। এ সময় তাদের ওপর লাঠিচার্জ করে পুলিশ। এতে তাদের অন্তত ১৫ জন নেতাকর্মী আহত হয়েছেন। এ সময় পুলিশ তিনজনকে আটক করে। আহতদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলেও জানান তাঁরা।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, রাজু ভাস্কর্য থেকে মশাল মিছিল নিয়ে গেলে শাহবাগ এলাকায় পুলিশ ব্যারিকেড দেয়। এটি অতিক্রমকালে পুলিশের সঙ্গে ধাওয়া-পাল্টাধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এ সময় পুলিশ টিয়ারশেল নিক্ষেপ এবং লাঠিপেটা করে। এ সময় প্রগতিশীল জোটের নেতাকর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে মশাল নিক্ষেপ করে। এরপর পুলিশ ক্ষিপ্ত হয়ে ব্যাপক লাঠিপেটা এবং কয়েকজনকে আটক করে। এরপর আন্দোলনকারীরা পিছু হটতে বাধ্য হয়।

সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের ঢাবি শাখার সভাপতি সালমান সিদ্দিকী বলেন, ‘পুলিশ অতর্কিতভাবে আমাদের ওপর হামলা করেছে। এতে আমাদের প্রায় ১৫ জন নেতাকর্মী আহত হয়। এবং পুলিশ আমাদের তিনজন নেতাকর্মীকে আটক করেছে।’

এ বিষয়ে পুলিশ বলেন, পুলিশ আত্মরক্ষার্থে তাদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। তখন তাঁরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল ছুড়ে।  আমাদের ১২ থেকে ১৪ জন পুলিশ আহত হয়েছে।

পুলিশি হামলার প্রতিবাদে প্রগতিশীল ছাত্রজোট তাৎক্ষণিক কর্মসূচি ঘোষণা করে। তারা আগামীকাল শনিবার সকাল ১১টায় ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল করবে বলে জানান।

সংবাদের ধরন : বাংলাদেশ নিউজ : নিউজ ডেস্ক