বিস্তারিত

মিশা আমার বন্ধু, কিন্তু সে প্রচুর মিথ্যা কথা বলে

ছবি : সংগ্রহকৃত

মিশা আমার বন্ধু, তার অনেকগুণ আছে, কিন্তু সে প্রচুর মিথ্যা কথা বলে। কথা কথায় বলে আমি নামাজ পড়ি, হজ করেছি। আরে আমরা কি হজ করি নি, তুই একাই নামাজ পড়িস, হজ করেছিস। তুই একটা কাপুরুষ, কাপুরুষতা কবে ছাড়বি মিশা?

একটি রেডিও অনুষ্ঠানের লাইভে এভাবেই বাংলা চলচ্চিত্রের খল নায়ক মিশা সওদাগরের ওপর ক্ষোভ প্রকাশ করলেন একসম্ময়ের তুমুল জনপ্রিয় নায়ক ওমর সানী। রেডিও লাইভ নামের ওই অনুষ্ঠানের ফেসবুক লাইভে উপস্থাপনা করছিলেন চিত্রনায়ক নিরব ও ইমন।

ওমর সানী বলেন, আমার শ্যালিকা ইরিন জামানের সদস্যপদ বাতিল করা হলো। আমি মিশাকে বললাম, ইরিনের ব্যাপারটা দেখতে। সে আমাকে বলে আমি তো জানি না, তুই একটু সেক্রেটারির (জায়েদ খান) সাথে কথা বল। আরে ব্যাটা আমি কেন তোর সেক্রেটারির সাথে বলবো?

ওমর সানী বলেন, মিশা আমাদের ফ্রেন্ড সার্কেলের অথচ একটা সভাপতি পদের জন্য সে কি রকম লালায়িত। আসলে এটা ওর কাছে আশা করি না। ১৮৪ জনকে কেন সদস্যপদ থেকে সরানো হলো এই প্রশ্ন করতে সে নির্বিকার ভাবে বলল আমি জানি না, এই রকম কাপুরুষতা করে সে।

জায়েদ প্রসঙ্গে ওমর সানী বলেন, ‘ও একটা ফাজিল। ফাজলামির একটা সীমা আছে। এখন শুনলে মনে চলচ্চিত্র সমিতি মানেই জায়েদ খান। নিজে নিজে সিদ্ধান্ত নিয়ে বলে কমিটর সিদ্ধান্ত। এখানে তুই (উপস্থাপকের ইমনের দিকে ইঙ্গিত করে) তো উপস্থিত আছিস, তুই কমিটির মেম্বার। ১৮৪ জনকে যে বাদ দেওয়া হলো, তোর মতামত নেওয়া হয়েছে? ও নিজের সিদ্ধান্ত সবার ওপরে চাপিয়ে দেয়।’

জায়েদ খানকে উদ্দেশ্য করে বলেন, পরকীয়া বা গুঞ্জন সব সময়ই ছিল কিন্তু এই সময়ে চলচ্চিত্রের মেয়েদের নিয়ে এতো কথা শুনতে হয়। চলচ্চিত্রের মেয়েদের নাঙ্গা করে দিল এই ছেলেটা। একে স্যাক (বহিষ্কার) করা উচিৎ।

এর আগে ইমন-নিরবের সঙ্গে আনন্দময় এক ঘন্টায় অতিথি হয়েছিলেন রিয়াজ, ফেরদৌস, শাকিব খান, মেহজাবীন, মিশা সওদাগর, পূর্ণিমা, নিপুণ, বিদ্যা সিনহা মিম, চঞ্চল চৌধুরী, মেহের আফরোজ শাওন, মাহিয়া মাহি, ইমরান। আগামী পর্বগুলোর অতিথি তালিকায় আরও চমক রয়েছে বলে জানা যায়।

সংবাদের ধরন : বিনোদন নিউজ : নিউজ ডেস্ক