বিস্তারিত

বাণী ও অক্ষয় প্রাইভেট জেটে স্কটল্যান্ড যাচ্ছেন

ছবি : সংগ্রহকৃত

করোনা ভাইরাসের জন্য প্রায় তিন মাস বন্ধ ছিল বলিউডের শ্যুটিং। তবে লকডাউন হালকা হতেই কাজে ফিরেছেন অক্ষয় কুমার। তিনি খুব তাড়াতাড়ি তাঁর পরবর্তী ছবি থ্রিলার ড্রামা ‘বেল বটম’-এর কাজ শুরু করতে চান। মুম্বাই মিররে দেওয়া ইন্টারভিউতে অক্ষয় কুমার জানিয়েছেন, অক্ষয় ও তাঁর টিম কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই স্কটল্যান্ডে যাবেন। তাঁদের এই জার্নি খুব খরচসাপেক্ষ হতে চলেছে। কারণ পুরো টিমটাই প্রাইভেট জেটে করে স্কটল্যান্ড যাবে।

‘বেল বটম’-এর টিম এই মাসের মধ্যেই কাজ শুরু করে দিতে চায়। কিন্তু করোনার জন্য ইন্ট্যারন্যাশনাল ট্রাভেল নিয়ে তাঁরা একটু চিন্তিত। ‘বেল বটম’ পরিচালনা করছেন রঞ্জিত এম তিওয়ারি। এই ছবিতে অক্ষয়ের সঙ্গে প্রথমবার নায়িকার চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যাবে বাণী কাপুরকে।

অক্ষয় ও বাণী একে অপরের সঙ্গে স্ক্রিন শেয়ার করা নিয়ে বেশ উত্তেজিত। একটি ইন্টারিভিউতে বানি জানিয়েছেন, “আমি অনেক দিন ধরেই অপেক্ষা করে ছিলাম এই কাজটা করার জন্য। যদিও এখন আমাদের অনেক বেশি সর্তকতা মেনে কাজ করতে হবে। যত তাড়াতাড়ি শ্যুটিং শুরু হয়, তত ভাল।” অক্ষয়কে এই ছবি ছাড়াও রোহিত শেঠির পরিচালনায় ‘সূর্যবংশি’তেও কাজ করতে দেখা যাবে। এ বছর দিওয়ালিতেই আসবে এই ছবি। যদি সব পরিস্থিতি ঠিক থাকে।

বাণী কাপুর একজন ভারতীয় অভিনেত্রী এবং সাবেক মডেল। দিল্লীতে জন্মগ্রহণকারী বাণী ইন্দিরা গান্ধী জাতীয় উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ট্যুরিজম স্টাডিসের উপর সম্মান ডিগ্রী অর্জন করেছেন। বাণী ২০১৩ সালে পরিনীতি চোপড়া এবং সুশান্ত সিং রাজপুত এর সঙ্গে তার প্রথম চলচ্চিত্র ‘শুধ দেশী রোমান্সে’ অভিনয় করেন।

৫৯ তম ফিল্মফেয়ার পুরস্কারে বাণী সেরা নবাগত অভিনেত্রীর পুরস্কার লাভ করেন। তিনি তামিল চলচ্চিত্র ‘আহা কল্যাণম’ এ অভিনয় করেন যা ব্যবসায়িকভাবে সফল হয়। ২০১৬ সালে বানী অভিনীত চলচ্চিত্র বেফিকরে মুক্তি পায়।

কাপুরের পিতা একজন কাঠ রপ্তানী ব্যবসায়ী এবং মাতা শিক্ষিকা থেকে মার্কেটিং এক্সিকিউটিভ হন। বাণী দিল্লীর অশোক বিহারের ‘মাতা জ্যায় কর পাবলিক স্কুল’ এ পড়েছেন। পরে ইন্দিরা গান্ধী ন্যাশনাল ওপেন ইউনিভার্সিটিতে পড়েন, এখান থেকে তিনি ট্যুরিজম স্টাডিস বিষয়ে ব্যাচেলর ডিগ্রী পাশ করেন।

সংবাদের ধরন : বিনোদন নিউজ : নিউজ ডেস্ক