বিস্তারিত

বাজারে আসছে করোনা জীবাণুনাশক দরজা

ছবি : সংগ্রহকৃত

জীবাণুনাশক প্রলেপ থাকবে দরজার হাতলেই, যা করোনাভাইরাসকে হত্যা করবে। এমন দরজা আর কয়েক সপ্তাহর মধ্যেই যুক্তরাজ্যের বাজারে আসছে।

ডা. ফেলেসিটি দ্যা কগ্যান হচ্ছেন সংক্রমণ-প্রতিরোধক প্রলেপ নিয়ে কাজ করা প্রতিষ্ঠান নিট্রোপেপ এর প্রতিষ্ঠাতা। তিনি বলেন, করোনার বিরুদ্ধে লড়তে গেলে উপরিভাগ বা পৃষ্ঠ হচ্ছে খুবই গুরুত্বপূর্ণ। যদি আমরা উপরিভাগ পরিষ্কার রাখতে পারি তবে করোনার বিস্তৃতি রোধ করা সম্ভব হবে। তিনি বলেন, আমাদের এই দরজা নিজে নিজেই পরিষ্কার হবে। এতে ওই ধরণের সুরক্ষা ব্যবস্থা দেয়া থাকবে। ফলে মানুষ আলাদাভাবে কষ্ট করে পরিষ্কার করতে হবে না, আলদাভাবে সংরক্ষণের কোন প্রয়োজন নাই। এমনকি তাদের প্রতিদিনের আচরণেও পরিবর্তন আনতে হবে না।

ইউনিভার্সিটি অব বার্মিহামের ডা. ফেলেসিটি দ্যা কগ্যান বলেন, আমাদের প্রকৌশলীরা আজ এমন একটি দরজার কাঠামো তৈরি করেছে। যেটি সার্স থেকে করোনাভাইরাস মুহুর্তে নিষ্ক্রিয় করে দেবে। দরজার হাতলে স্থায়ীভাবে জীবাণুনাশক প্রলেপ থাকবে। অনলাইন সংবাদ সম্মেলনে তিনি আরো বলেন, আগামী কয়েক সপ্তাহর মধ্যে এ দরজা বাজারে আনার জন্য প্রস্তুত হবে। তবে কয়েক মাসও লাগতে পারে।

ইউনিভার্সিটি অব সাউথঅ্যামপটন এর মাইক্রোবায়োলোজিস্ট উইলিয়াম কিভিল ইতিপূর্বে সব ধরণের ধাতব পদার্থ – যেমন দরজার হাতল, ট্রলি, বাসের দরজা ও হাতল এবং জিম সরঞ্জামে জীবাণুনাশক প্রলেপ দেয়ার আহবান জানিয়েছিলেন। তিনি জানান, ইতিমধ্যে পোল্যান্ডে পরিবহনে এ ব্যবস্থা করা হয়েছে। চিলি ও ব্রাজিলও একইপথে হাটছে।

সংবাদের ধরন : আন্তর্জাতিক নিউজ : নিউজ ডেস্ক