বিস্তারিত

বাঙালি নারীর সৌন্দর্য ‘শাড়িতে’

ছবি : সংগ্রহকৃত

bd news,bdnews,bdnews24,bdnews24 bangla,bd news 24,bangla news,bangla,bangla news paper,all bangla newspaper,bangladesh newspapers,all bangla newspaper,bangla news paper,bangladesh newspapers,all bangla newspapers,bd news 24,bangla news today,bd news paper,all bangla news paper,bangladeshi newspaper,all bangla newspaper,all bangla newspapers,bdnews,bangla news,bangla newspaper,bangla news paper,bangla news 24,banglanews,bd news 24,bangla news today,bd news paper,all bangla news paper,bangladeshi newspaper,all bangla newspaper,all bangla newspapers

শাড়ি বাঙালি নারীর ঐতিহ্য। শাড়িতেই যেন বাঙালি নারীর সৌন্দর্য ফুটে উঠে পুরোপুরি। আর শাড়ির সাথে হালকা সাজ হলে তো কথাই নেই। শাড়ি এবং হালকা সাজে একজন নারী হয়ে ওঠেন পরিপূর্ণ।

জীবনের আনন্দঘন মুহূর্তগুলো যেমন বিয়ে-জন্মদিন, বাসার পার্টি, অফিসের কাজে কিংবা অন্য যে কোনো উৎসবে শাড়িই হয়ে ওঠে বাঙালি নারীর প্রথম এবং একমাত্র পছন্দ। আর নিজের বিয়ের ক্ষেত্রেও শাড়ি আলাদা গুরুত্ব পায়। বেশির ভাগ নারীই চান, তার বিয়ের শাড়িটি হবে সুন্দর এবং দামি।

মূলত সনাতন ধর্মাবলম্বীদের মাঝে প্রথম শাড়ির প্রচলন শুরু হয়। তারা মনে করতো সেলাইকৃত বা জোড়া দেওয়া কাপড় অপবিত্র। আবার এরকম একটা ধারণাও তাদের মধ্যে প্রচলিত ছিল যে, নাভিমূলই জীবন ও সৃষ্টির উৎস এবং তা খুবই গুরুত্বপূর্ণ, তাই শাড়িতে তা উন্মুক্ত রাখা হতো। সিন্ধু এলাকার মহিলাদের এই কটিবন্ধ তখন নাম পায় নিভি। মহিলাদের এই কটিবন্ধ ভারতবর্ষে বহুল প্রচলিত শাড়ির অগ্রদূত। সিন্ধু সভ্যতার পরের বিভিন্ন মহাকাব্য থেকে প্রাপ্ত তথ্য থেকে দেখা যায় পরবর্তীতে কাঁচুকি নামে এক টুকরা কাপড় শরীরের উপরের অংশে জড়িয়ে পরার প্রচলন নারীদের মধ্যে ছিল যা থেকে ব্লাউজের প্রচলন শুরু হয়।

এভাবে শাড়ি দীর্ঘ পথ পেরিয়ে বর্তমানের মেয়েদের কাছে এসেছে। আরাম ও বিলাসিতায় এভাবেই বাঙালি নারীর সবার আগে প্রাধান্য পায় শাড়ি। যদিও শতাব্দীর পর শতাব্দী ধরে শাড়ি এদেশীয় খুকি থেকে বুড়ি সবার শোভা বৃদ্ধি করছে, তবুও এর অসাধারণত্ব ও দারুণ সৌন্দর্য সামান্যতম ম্লান হয়নি,বরং দিন দিন এর আকর্ষণ বেড়েছে, বিশ্বজুড়ে বাড়ছে আজও।

শাড়ি পরার সময় যে বিষয়গুলো অবশ্যই লক্ষ্য রাখা উচিত

শাড়ি পরার সময় কিছু বিশেষ বিষয়ের দিকে অবশ্যই লক্ষ্য রাখা উচিত। এই বিষয়গুলো শাড়ি পরার সময়ে লক্ষ্য না করলে কষ্ট করে শাড়ি পরাটাই মাটি হয়ে যেতে পারে।

১) শাড়ি পড়ার সময়ে অবশ্যই খেয়াল রাখুন যেন পেটিকোট শক্ত করে বাঁধা হয়। নাহলে কিছুক্ষণ পর পর আপনার শাড়ি পায়ের নিচে চলে যাবে এবং হিলে টান লেগে ছিড়ে যেতে পারে।

২) পেটিকোট খুব বেশি উপরে পরবেন না কিংবা একদম নিচেও পরবেন না। পেটিকোট নাভির খুব বেশি উপরে কিংবা নাভির অনেক বেশি নিচে পড়লে বিচ্ছিরী দেখাবে শাড়ি পড়লে।

৩) শাড়ি পরার সময়ে লক্ষ্য রাখুন ব্লাউজের ফিটিং যেন ঠিকমত হয়। খুব বেশি আঁটসাঁট ব্লাউজে আপনার পিঠের মেদ বোঝা যাওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে। আবার একদম ঢিলে ঢালা ব্লাউজেও আপনাকে দেখতে স্মার্ট দেখাবে না।

সংবাদের ধরন : জীবন যাপন নিউজ : নিউজ ডেস্ক