বিস্তারিত

ত্রাণের বস্তা মাথায় নিয়ে আশ্রয় কেন্দ্রে সিংড়ার মেয়র

ছবি : সংগ্রহকৃত

নাটোরের সিংড়ায় আত্রাই নদীর পানির তোড়ে পৌর এলাকার শোলাকুড়া গ্রামে পাকা সড়ক ভেঙে ৯ ও ১০ নম্বর ওয়ার্ডের প্রায় ৫ হাজার লোকের যোগাযোগ সম্পূর্ণ বিছিন্ন হয়ে পড়েছে। ভাঙনের ফলে বাড়ি-ঘর হারিয়ে কারো ঠাঁই হয়েছে আশ্রয় কেন্দ্রে আবার কারো নদীর বাঁধে খোলা আকাশের নিচে।

নদীর পানির তোড়ে ভেছে গেছে চলনবিলের কৃষকের স্বপ্নের সোনার ফসল। সব কিছু হারিয়ে মানুষ এখন অসহায়। যোগাযোগ বিছিন্নর কারণে রাস্তায় চলে না কোন গাড়ি। সেই অসহায় আশ্রয়হীন মানুষের জন্য প্রধানমন্ত্রীর মানবিক সহায়তা চাল, ডাল, লবণ, চিনি, তেল এর ১৮ কেজি ওজনের তিনটি বস্তা মাথায় নিয়ে আধা কিলোমিটার হেটে গেলেন সিংড়ার পৌর মেয়র মো. জান্নাতুল ফেরদৌস।

সাথে থাকা কর্মীদের মাথায় তুলে দিলেন ত্রাণের বস্তা। পরে ৩ শতাধিক বানভাসীকে মানবিক সহায়তা পৌছে দেন তিনি। বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে ৫টায় শহরের মহেশচন্দ্রপুর বন্যা কবলিত এলাকায় এমন দৃশ্য চোখে পড়ে। এসময় পৌর কাউন্সিলর আব্দুল আউয়াল রিংকু, গোল-ই-আফরোজ সরকারি কলেজের ভিপি সজিব ইসলাম জুয়েলসহ অর্ধ শতাধিক কর্মী সমর্থক উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদের ধরন : বাংলাদেশ নিউজ : নিউজ ডেস্ক