বিস্তারিত

তুরস্কে শক্তিশালী ভূমিকম্প, ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কা

ছবি : সংগ্রহকৃত

শক্তিশালী ভূমিকম্পে কেঁপে উঠেছে তুরস্ক। রিখটার স্কেলে ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল ৭। দেশটির ইজিয়ান সাগরের উপকূলীয় এলাকা ও গ্রিসের উত্তরাঞ্চলে এই ভূমিকম্পের তীব্রতা ছিল সবচেয়ে বেশি। এতে উভয় দেশে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কা করা হচ্ছে। শক্তিশালী ভূমিকম্পে অন্তত চারজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন ১৫০ জনের বেশি। ‍

শুক্রবার (৩০ অক্টোবর) তুরস্কের এজিয়ান উপকূল এবং গ্রিসের সামোন উপকূলের উত্তরাংশে শক্তিশালী এ ভূমিকম্প আঘাত হানে।

আজ শুক্রবার এই ভূমিকম্প আঘাত হানার পর তুরস্কের উপকূলবর্তী শহর ইজমিরে লোকজন আতঙ্কে ঘর ছেড়ে রাস্তায় নেমে আসে। দেশটির তৃতীয় বৃহত্তম শহর ইজমিরে ১৩ তলা একটি ভবন ধসে পড়েছে। এ ছাড়া আরো বেশ কিছু জায়গায় অন্তত ২০টি বহুতল ভবন ধসে পড়েছে।

মার্কিন জিওলজিক্যাল সার্ভে জানিয়েছে, মাটির ১০ কিলোমিটার গভীরে কম্পন হয় এবং উৎসস্থল তুরস্কের উপকূলের ৩৩.৫ কিলোমিটার দূরে।

ভূমিকম্পের প্রভাব পড়েছে বুলগেরিয়া, সাইপ্রাস, মিসর, লিবিয়া, যুক্তরাজ্য এবং উত্তর মেসিডোনিয়াতেও। তুরস্কের অভ্যন্তরীণ মন্ত্রী সুলেমান সোয়লু জানিয়েছেন, ইজমিরের বেয়ারাকলি ও বোরনোভা জেলায় ছয়টি বাড়ি ভেঙে পড়েছে। উসাক, ডেনিজলি, মনিসা, এডেন, মুগলার মতো সংলগ্ন প্রদেশগুলোতে সামান্য ক্ষয়ক্ষতির খবর মিলেছে।

সংবাদের ধরন : আন্তর্জাতিক নিউজ : নিউজ ডেস্ক