বিস্তারিত

গণপরিবহনে বাড়তি ভাড়া ৩১ আগস্ট পর্যন্ত বহাল

ছবি : সংগ্রহকৃত

বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ) গণপরিবহনের ভাড়া কমানো ও স্বাভাবিক চলাচলের জন্য মন্ত্রিপরিষদের নির্দেশনা চাইবে। সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির নেতারা বাড়তি বাসভাড়া প্রত্যাহার করে স্বাভাবিকভাবে গণপরিবহন চালাতে চাচ্ছেন। তাঁদের এই দাবি সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে পাঠাবে বিআরটিএ। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের নির্দেশনা অনুযায়ী পরবর্তী সিদ্ধান্ত জানাবে বিআরটিএ। আপাতত গণপরিবহনের বিদ্যমান ভাড়া আগামী ৩১ আগস্ট পর্যন্ত চলবে।

রাজধানীর বিআরটিএ কার্যালয়ে গতকাল বুধবার বিকেলে গণপরিবহনের মালিক ও শ্রমিক সংগঠনের নেতাদের সঙ্গে বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত হয়েছে। করোনাভাইরাস প্রতিরোধে সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতপূর্বক গত ৩১ মে থেকে গণপরিবহন চালুর সুযোগ দিয়েছে সরকার। তখন ৬০ শতাংশ বাড়তি ভাড়ায় অর্ধেক যাত্রী পরিবহনের নির্দেশ দেওয়া হয়। কিন্তু গত ঈদুল আজহার পর থেকে গণপরিবহনে অর্ধেকের বেশি যাত্রী পরিবহন করা হচ্ছে, সঙ্গে বাড়তি ভাড়াও নেওয়া হচ্ছে। এর পরিপ্রেক্ষিতে বাড়তি ভাড়া কমানোর দাবি তুলেছে অনেকে।

বিআরটিএ চেয়ারম্যান বলেন, মালিক সমিতির দাবিগুলো সরকারের উচ্চ পর্যায়ে জানাব। সেখান থেকে যে নির্দেশনা আসবে সেটাই পরে জানিয়ে দেব। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে ৩১ আগস্ট পর্যন্ত নিয়ন্ত্রিত চলাচলের নির্দেশনা আছে। ওই দিন পর্যন্ত বিদ্যমান ভাড়াই বহাল থাকবে।

সংবাদের ধরন : র্শীষ সংবাদ নিউজ : নিউজ ডেস্ক