বিস্তারিত

করোনায় দেশের মোট আক্রান্তের ৪৬ ভাগ রাজধানীতে

ছবি : সংগ্রহকৃত

দেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে বহুগুণে। শুক্রবার পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা দাড়িয়েছে ১৮৩৮জনে। করোনাভাইরাসে দেশের মোট আক্রান্তের শতকরা ৪৬ ভাগ রাজধানী ঢাকায়। এর মধ্যে করোনার সংক্রমণ সবচেয়ে বেশি ছড়িয়েছে রাজধানীর মিরপুর এলাকায়। এলাকাটিতে মোট আক্রান্তের ১১ শতাংশ রয়েছে।

গত মাসের প্রথম দিকে রাজধানীর টোলারবাগে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয়। পরে তা মিরপুরের বিভিন্ন এলাকায় ছড়িয়ে পড়েছে। আক্রান্তের হার মোহাম্মদপুর, ওয়ারী ও যাত্রাবাড়ী এলাকায় করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে প্রায় ৪ শতাংশ।এছাড়া ৩ শতাংশ রোগী পাওয়া গেছে ধানমন্ডিতে।

এদিকে ঢাকার নিকটবর্তী জেলা নারায়ণগঞ্জে এখন পর্যন্ত মোট আক্রান্তের প্রায় ২০ শতাংশ করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে । এছাড়া গাজীপুর, চট্টগ্রাম ও মুন্সিগঞ্জেও করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমেই বাড়ছে। প্রতিনিয়িত দেশের বিভিন্ন জেলায় আক্রান্তের খবর পাওয়া যাচ্ছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় এ রোগে আক্রান্ত হয়ে নতুন করে মারা গেছেন আরো ১৫জন। আক্রান্ত হয়েছেন আরও ২৬৬ জন। এতে মোট মৃতের সংখ্যা হয়েছে ৭৫জনে। আক্রান্তদের মধ্যে আরও নয়জন সুস্থ হয়ে উঠেছেন। ফলে মোট সুস্থ হয়েছেন ৫৮ জন।

হেলথ বুলেটিনে আইইডিসিআরের পরিচালক অধ্যাপক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা জানান, দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত মোট রোগীর বয়স বিভাজনে দেখা যায়, আক্রান্তদের মধ্যে সর্বোচ্চ সংখ্যক ২১ শতাংশ ২১ থেকে ৩০ বছর বয়সী। ৩১ থেকে ৪০ বছর বয়সী প্রায় ১৯ শতাংশ এবং ৪১ থেকে ৫০ বছর বয়সী আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ১৫ শতাংশ।

বিশ্লেষণে দেখা যায়, ২১ থেকে ৫০ বছর বয়সী মানুষের মধ্যেই সংক্রমণের হার সর্বোচ্চ। নারী-পুরুষ বিভাজন দেখা যায়, ৬৮ শতাংশ পুরুষ ও ৩২ শতাংশ নারী আক্রান্ত হয়েছেন করোনায়।

সংবাদের ধরন : র্শীষ সংবাদ নিউজ : নিউজ ডেস্ক