বিস্তারিত

একই পরিবারের চারজনকে গলা কেটে হত্যা

ছবি : সংগ্রহকৃত

গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলায় মা-মেয়েসহ একই পরিবারের চারজনকে গলা কেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে তিন টার দিকে উপজেলার জৈনাবাজার এলাকায় নিজেদের ঘরে তাদের হত্যা করা হয়।

নিহতরা হলেন ময়মনসিংহের পাগলা থানার লংগাইর ইউনিয়নের গোলাবাড়ী গ্রামের মালয়েশিয়া প্রবাসী কাজলের স্ত্রী ফাতেমা আক্তার (৪০), তার বড় মেয়ে নুরা (১৪), ছোট মেয়ে হাওরিন (১১) ও প্রতিবন্ধী ছেলে ফাদিল (৬)। তারা জৈনাবাজার এলাকায় জমি কিনে বাড়ি বানিয়ে বসবাস করছিলেন।

প্রবাসী কাজলের ছোট ভাই আরিফ জানান, বুধবার সন্ধ্যার দিকে তার ভাইয়ের স্ত্রী ফাতেমা বেগম বৃহস্পতিবার সকালে তার বাড়িতে বাজার করে দিতে বলেন। সাড়ে ১০টার দিকে বাড়িতে ডাকাডাকি করে কোনো সাড়া পাওয়া যায়নি।

পরে দুপুর ২টার দিকে আবার ডাকডাকি করেও কোনো সাড়া না পেয়ে পাশের বাড়ির টিনের চালের ওপর দিয়ে বাড়িতে ঢুকেন। পরে ওই বাড়ির দোতলার একটি কক্ষের একই মেঝেতে সকলের রক্তমাখা গলাকাটা মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেন।

আরিফ জানান, তার বড় ভাই কাজল দীর্ঘদিন ধরে মালয়েশিয়ায় থাকেন। জানা মতে তার ভাইয়ের কোনও শত্রু নেই। কে বা কারা এ ঘটনা ঘটিয়েছে তা জানা যায়নি।

খবর পাওয়ার পর বিকেলে চারটার দিকে পুলিশ মরদেহ উদ্ধারের জন্য ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে।

সংবাদের ধরন : বাংলাদেশ নিউজ : নিউজ ডেস্ক