বিস্তারিত

আরও একজনের মরদেহ ২৭ ঘণ্টা পর উদ্ধার

ছবি : সংগ্রহকৃত

বুড়িগঙ্গায় ডুবে যাওয়া লঞ্চ ‘মর্নিং বার্ড’ টেনে তুলছেন উদ্ধারকর্মীরা। ব্যবহার করা হচ্ছে এয়ার লিফটিং ব্যাগ। এ সময় ২৭ ঘণ্টা পর আরও একজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মৃতদেহটি একজন পুরুষের। তবে, তার পরিচয় এখনও জানা যায়নি। এ নিয়ে লঞ্চডুবির ঘটনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ৩৩ জনে। উদ্ধার অভিযান এখনও অব্যাহত রয়েছে।

উদ্ধারে কাজ করছেন ফায়ার সার্ভিস, কোস্টগার্ড, নৌবাহিনী ও বিআইডব্লিউটিএর কর্মীরা। এর আগে, লঞ্চটিকে মাঝ নদী থেকে টেনে কেরানীগঞ্জের দিকে তীরের কাছাকাছি নেয়া হয়। ফায়ার সার্ভিস জানায়, লঞ্চটি পুরোপুরি উদ্ধার না হওয়া পর্যন্ত তাদের এ অভিযান চলবে।

সোমবার (২৯ জুন) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ময়ুর-২ নামের একটি লঞ্চের ধাক্কায় ডুবে যায় মুন্সিগঞ্জ থেকে ছেড়ে আসা লঞ্চ মর্নিং বার্ড। এতে এ পর্যন্ত ৩৩ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ১৩ ঘণ্টা পর জীবিত উদ্ধার হয়েছে একজন। তাকে ভর্তি করা হয়েছে ঢাকার মিটফোর্ড হাসপাতালে।

সংবাদের ধরন : বাংলাদেশ নিউজ : নিউজ ডেস্ক